জেরুসালেম নিয়ে ট্রাম্প বনাম গোটা বিশ্ব | বিশ্ব | DW | 07.12.2017

মধ্যপ্রাচ্য সংকট

জেরুসালেম নিয়ে ট্রাম্প বনাম গোটা বিশ্ব

জেরুসালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ায় আরব জগত, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, জার্মানিসহ গোটা বিশ্ব ট্রাম্প প্রশাসনের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করছে৷ জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের জরুরি বৈঠক বসছে৷

বেথলেহেমে বিক্ষোভ

নির্বাচনি প্রতিশ্রুতি পালন করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বুধবার আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করেন যে; ইসরায়েলে মার্কিন দূতাবাস তেল আভিভ থেকে জেরুসালেমে স্থানান্তরিত করা হবে৷

অ্যামেরিকার এই একক সিদ্ধান্তের পরিণতি নিয়ে চরম দুশ্চিন্তা প্রকাশ করেছে একাধিক দেশ ও গোষ্ঠী৷ ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও জাতিসংঘের মতে, এর ফলে ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে শান্তি প্রক্রিয়া আবার শুরু করার প্রচেষ্টা হুমকির মুখে পড়বে৷ ইইউ-র পররাষ্ট্র বিষয়ক প্রধান ফেডেরিকা মোগেরিনি এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, জেরুসালেমে দুই রাষ্ট্রের রাজধানী স্থাপন করাই ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে সংকটের একমাত্র বাস্তবসম্মত সমাধানসূত্র৷ তিনি বলেন, সোমবার ব্রাসেলসে ইইউ পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেনইয়ামিন নেতানিয়াহুর সঙ্গে এ বিষয়ে আলোচনা করবেন৷ 

দুই পক্ষের মধ্যে বোঝাপড়া ছাড়া বিতর্কিত জেরুসালেম শহরের স্থিতাবস্থার কোনো পরিবর্তনের বিরোধিতা করে আন্তর্জাতিক সমাজ৷

অ্যামেরিকার প্রায় সব ঘনিষ্ঠ সহযোগী দেশ ট্রাম্প প্রশাসনের সিদ্ধান্তের তীব্র সমালোচনা করেছে৷ জার্মানি জানিয়ে দিয়েছে, একমাত্র দ্বিরাষ্ট্রভিত্তিক সমাধানসূত্রের আওতায় জেরুসালেম শহরের ভবিষ্যৎ নির্ধারণ করা উচিত৷ ফ্রান্স এই একক সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে মধ্যপ্রাচ্যে শান্তির ডাক দিয়েছে৷ ব্রিটেন জানিয়েছে, এর ফলে শান্তির উদ্যোগের ক্ষতি হবে এবং শেষ পর্যন্ত ইসরায়েল ও ভবিষ্যৎ ফিলিস্তিনি রাষ্ট্র জেরুসালেম শহরকে নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নেবে, এমনটাই কাম্য৷ রাশিয়া জানিয়েছে, এমন একতরফা সিদ্ধান্তের ফলে মধ্যপ্রাচ্য পরিস্থিতি আরও জটিল হয়ে পড়লো এবং আন্তর্জাতিক সমাজের ঐকমত্যে ফাটল দেখা দিচ্ছে৷

বলা বাহুল্য, ইসরায়েল ট্রাম্প প্রশাসনের এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে৷ প্রধানমন্ত্রী বেনইয়ামিন নেতানিয়াহু বলেছেন, এই সিদ্ধান্ত শান্তির পথে এক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত৷ ইসরায়েল রাষ্ট্রের পত্তনের প্রথম দিন থেকে এটাই লক্ষ্য ছিল৷ তিনি বলেন, ফিলিস্তিনিদের সঙ্গে ভবিষ্যৎ শান্তি চুক্তিতে জেরুসালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দিতে হবে৷ তিনি অন্যান্য দেশকেও ট্রাম্প-এর দৃষ্টান্ত অনুসরণ করার ডাক দিয়েছেন৷

ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস বলেছেন, জেরুসালেম ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রের ‘অনন্ত রাজধানী’৷ তাঁর মতে, ট্রাম্প-এর এই সিদ্ধান্তের মাধ্যমে শান্তির পথে মধ্যস্থতাকারী হিসেবে ওয়াশিংটন তার নেতৃত্বের ভূমিকা ত্যাগ করলো৷ ফিলিস্তিনি কট্টরপন্থি গোষ্ঠী হামাস বলেছে, ট্রাম্প ফিলিস্তিনি জাতির উপর খোলাখুলি আগ্রাসন করলেন৷ হামাস আরব ও মুসলিম জগতের উদ্দেশ্যে গোটা অঞ্চলে মার্কিন স্বার্থ ক্ষুণ্ণ করা ও ইসরায়েলকে একঘরে করে রাখার ডাক দিয়েছে৷ বৃহস্পতিবার একাধিক ফিলিস্তিনি সংগঠন সাধারণ ধর্মঘট ও বিক্ষোভ কর্মসূচির ডাক দিয়েছে৷ পশ্চিম তীর ও গাজায় প্রতিবাদ বিক্ষোভের জের ধরে ইসরায়েলি নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে কমপক্ষে ১৭ জন আহত হয়েছে৷ 

জর্ডানের রাজধানী আম্মানের কিছু অংশে ফিলিস্তিনি শরণার্থীরা প্রতিবাদ বিক্ষোভ দেখিয়েছে৷ মার্কিন-বিরোধী স্লোগান দিয়ে অনেকে জর্ডানের উদ্দেশ্যে ইসরায়েলের সঙ্গে ১৯৯৪ সালের শান্তি চুক্তি বাতিল করার আবেদন জানিয়েছে৷

শুক্রবার জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ এক জরুরি বৈঠক ডেকেছে৷ সেখানে ট্রাম্প প্রশাসনের সিদ্ধান্ত ও তার পরিণতি নিয়ে আলোচনা করা হবে৷

এসবি/এসিবি (রয়টার্স, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

Albanian Shqip

Amharic አማርኛ

Arabic العربية

Bengali বাংলা

Bosnian B/H/S

Bulgarian Български

Chinese (Simplified) 简

Chinese (Traditional) 繁

Croatian Hrvatski

Dari دری

English English

French Français

German Deutsch

Greek Ελληνικά

Hausa Hausa

Hindi हिन्दी

Indonesian Bahasa Indonesia

Kiswahili Kiswahili

Macedonian Македонски

Pashto پښتو

Persian فارسی

Polish Polski

Portuguese Português para África

Portuguese Português do Brasil

Romanian Română

Russian Русский

Serbian Српски/Srpski

Spanish Español

Turkish Türkçe

Ukrainian Українська

Urdu اردو