বাংলাদেশের সংস্কৃতি সমকামিতা সর্মথন করে না

বাংলাদেশে সমকামীরা ধীরে ধীরে আওয়াজ তুলছেন৷ তাই বাংলাদেশে সমকামিতা কী বৈধ করা উচিত? এর উত্তরে ডয়চে ভেলের ফেসবুকে বেশিরভাগ বন্ধুই এর বিপক্ষে মত দিয়েছেন৷ তবে কেউ কেউ আবার সমকামিতাকে সমর্থন করলেও গোপনে করার পরামর্শ দিয়েছেন৷

বাংলাদেশে সমকামীরা ধীরে ধীরে আওয়াজ তুলছেন৷ তাই বাংলাদেশে সমকামিতা কী বৈধ করা উচিত? এর উত্তরে ডয়চে ভেলের ফেসবুকে বেশিরভাগ বন্ধুই এর বিপক্ষে মত দিয়েছেন৷ তবে কেউ কেউ আবার সমকামিতাকে সমর্থন করলেও গোপনে করার পরামর্শ দিয়েছেন৷

‘‘সমকামিতা একটি বিকৃত মানসিকতা৷ তাছাড়া বাংলাদেশ একটি মুসলিম প্রধান দেশ হওয়ায় ধর্মীয় কারণে সমকামিতা গ্রহণযোগ্য নয়৷ আমাদের সংস্কৃতি সমকামিতা সর্মথন করে না৷ এ প্রসঙ্গে বির্তক না বড়ানোই ভাল,'' এই মন্তব্য মোশারফ হোসেনের৷

তবে ডয়চে ভেলের ফেসবুক বন্ধু শাকিল আহমেদের কাছে সব মানুষই সমান৷ তিনি তাঁর মতামত জানিয়েছেন এভাবে, ‘‘প্রত্যেকের সমান অধিকার দরকার, সমকামীদেরও স্বাভাবিকভাবে বাঁচার অধিকার আছে৷''

পাঠক লিংকন মনে করেন সমকামিতা জঘন্য অপরাধ, যা কোনো ধর্ম সমর্থন করেনা৷ কামাল ফকিরের মন্তব্য, ‘‘চরিত্রহীনতার সর্বনিকৃষ্ট রূপ হলো সমকামিতা, পশুরাও যা করে না৷''

ধী-এর গল্প

কার্টুন চরিত্রের নাম ধী৷ মফস্বলের এক তরুণী যে কিনা অন্য এক নারীর প্রেমে পড়েছেন, তাকে নিয়েই মূলত সাজানো হয়েছে চরিত্রটি৷ বাংলাদেশে সমকামিতা নিষিদ্ধ৷ আর এধরনের কমিকও এই প্রথম প্রকাশ করা হলো৷

সহায়তায় ‘বয়েজ অফ বাংলাদেশ’

সমকামী পুরুষদের গ্রুপ ‘বয়েজ অফ বাংলাদেশ’ ‘ধী-এর গল্প’ নিয়ে ফেসবুকে প্রচারণা চালাচ্ছে৷ ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে আগতদের মধ্যে কমিকটির ফ্রি কপিও বিতরণ করা হয়৷

টুইটারে প্রজেক্ট ধী

সমকামীদের অধিকারের বিষয়ে জনসচেতনতা তৈরিতে ধী প্রকল্পের উল্লেখযোগ্য অনলাইন উপস্থিতি রয়েছে৷ ফেসবুক, টুইটার এবং ইন্সটাগ্রামে তাদের প্রোফাইল রয়েছে৷ টুইটার অ্যাকাউন্টটি অবশ্য তেমন সক্রিয় নয়৷

সমকামীদের যেভাবে দেখা হয়

বাংলাদেশে সমকামীদের সম্পর্কে সাধারণ মানুষের অবস্থান তুলে ধরা হয়েছে কার্টুনটিতে৷

সচেতনতা সৃষ্টির উদ্যোগ

চলতি বছরের এপ্রিলে ধী প্রকল্পের উদ্যোগে ‘টিম বিল্ডিং’ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়৷ এই টুইটটিতে সেই কর্মসূচির কিছু ছবি দেখা যাচ্ছে৷

ইন্সটাগ্রামে ধী

ধী প্রকল্পের ইন্সটাগ্রাম পাতাটির অবস্থাও টুইটারের মতো৷ এখন পর্যন্ত মাত্র পাঁচটি ছবি শেয়ার করা হয়েছে সেখানে৷

শাস্তিযোগ্য অপরাধ

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে সমকামিতা শাস্তিযোগ্য অপরাধ৷ সমলিঙ্গের সঙ্গে যৌনকর্মে লিপ্ত হলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড পর্যন্ত দেয়ার বিধান রয়েছে৷

সমকামীদের অধিকারের বিষয়ে জনসচেতনতা তৈরিতে ধী প্রকল্পের উল্লেখযোগ্য অনলাইন উপস্থিতি রয়েছে৷ ফেসবুক, টুইটার এবং ইন্সটাগ্রামে তাদের প্রোফাইল রয়েছে৷ টুইটার অ্যাকাউন্টটি অবশ্য তেমন সক্রিয় নয়৷

ধী প্রকল্পের ইন্সটাগ্রাম পাতাটির অবস্থাও টুইটারের মতো৷ এখন পর্যন্ত মাত্র পাঁচটি ছবি শেয়ার করা হয়েছে সেখানে৷

বাংলাদেশে সমকামীরা ধীরে ধীরে আওয়াজ তুলছেন৷ তাই বাংলাদেশে সমকামিতা কী বৈধ করা উচিত? এর উত্তরে ডয়চে ভেলের ফেসবুকে বেশিরভাগ বন্ধুই এর বিপক্ষে মত দিয়েছেন৷ তবে কেউ কেউ আবার সমকামিতাকে সমর্থন করলেও গোপনে করার পরামর্শ দিয়েছেন৷

‘‘সমকামিতা একটি বিকৃত মানসিকতা৷ তাছাড়া বাংলাদেশ একটি মুসলিম প্রধান দেশ হওয়ায় ধর্মীয় কারণে সমকামিতা গ্রহণযোগ্য নয়৷ আমাদের সংস্কৃতি সমকামিতা সর্মথন করে না৷ এ প্রসঙ্গে বির্তক না বড়ানোই ভাল,'' এই মন্তব্য মোশারফ হোসেনের৷

তবে ডয়চে ভেলের ফেসবুক বন্ধু শাকিল আহমেদের কাছে সব মানুষই সমান৷ তিনি তাঁর মতামত জানিয়েছেন এভাবে, ‘‘প্রত্যেকের সমান অধিকার দরকার, সমকামীদেরও স্বাভাবিকভাবে বাঁচার অধিকার আছে৷''

পাঠক লিংকন মনে করেন সমকামিতা জঘন্য অপরাধ, যা কোনো ধর্ম সমর্থন করেনা৷ কামাল ফকিরের মন্তব্য, ‘‘চরিত্রহীনতার সর্বনিকৃষ্ট রূপ হলো সমকামিতা, পশুরাও যা করে না৷''

ধী-এর গল্প

কার্টুন চরিত্রের নাম ধী৷ মফস্বলের এক তরুণী যে কিনা অন্য এক নারীর প্রেমে পড়েছেন, তাকে নিয়েই মূলত সাজানো হয়েছে চরিত্রটি৷ বাংলাদেশে সমকামিতা নিষিদ্ধ৷ আর এধরনের কমিকও এই প্রথম প্রকাশ করা হলো৷

সহায়তায় ‘বয়েজ অফ বাংলাদেশ’

সমকামী পুরুষদের গ্রুপ ‘বয়েজ অফ বাংলাদেশ’ ‘ধী-এর গল্প’ নিয়ে ফেসবুকে প্রচারণা চালাচ্ছে৷ ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে আগতদের মধ্যে কমিকটির ফ্রি কপিও বিতরণ করা হয়৷

টুইটারে প্রজেক্ট ধী

সমকামীদের অধিকারের বিষয়ে জনসচেতনতা তৈরিতে ধী প্রকল্পের উল্লেখযোগ্য অনলাইন উপস্থিতি রয়েছে৷ ফেসবুক, টুইটার এবং ইন্সটাগ্রামে তাদের প্রোফাইল রয়েছে৷ টুইটার অ্যাকাউন্টটি অবশ্য তেমন সক্রিয় নয়৷

সমকামীদের যেভাবে দেখা হয়

বাংলাদেশে সমকামীদের সম্পর্কে সাধারণ মানুষের অবস্থান তুলে ধরা হয়েছে কার্টুনটিতে৷

সচেতনতা সৃষ্টির উদ্যোগ

চলতি বছরের এপ্রিলে ধী প্রকল্পের উদ্যোগে ‘টিম বিল্ডিং’ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়৷ এই টুইটটিতে সেই কর্মসূচির কিছু ছবি দেখা যাচ্ছে৷

ইন্সটাগ্রামে ধী

ধী প্রকল্পের ইন্সটাগ্রাম পাতাটির অবস্থাও টুইটারের মতো৷ এখন পর্যন্ত মাত্র পাঁচটি ছবি শেয়ার করা হয়েছে সেখানে৷

শাস্তিযোগ্য অপরাধ

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে সমকামিতা শাস্তিযোগ্য অপরাধ৷ সমলিঙ্গের সঙ্গে যৌনকর্মে লিপ্ত হলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড পর্যন্ত দেয়ার বিধান রয়েছে৷

ইমতিয়াজ খান লিখেছেন, মানুষের এমন বিকৃত রুচি কিভাবে হয় সেটাই তিনি বোঝেন না৷ আকাশ অরণ্য ইমতিয়াজ খানকে পাল্টা প্রশ্ন করেছেন, ‘‘কোন দৃষ্টিতে আপনি বিকৃত বলবেন? কোনো বিজ্ঞানভিত্তিক প্রমাণ আছে? হিজড়াদের ব্যাপারে আপনার অভিমত কী?''

মোহাম্মদ ইসমাইল হোসেনসহ অনেকে এসব বিষয় এবং অন্যান্য ট্যাবু বিষয় নিয়ে ডয়চে ভেলের ফেসবুক পাতায় আলোচনা করার বিপক্ষে মতামত জানিয়েছেন৷ মোস্তাফিজুর রহমান লিখেছেন, অনেক মানুষই ডয়চে ভেলে থেকে প্রকাশিত অন্যান্য তথ্য পছন্দ করেন, তাই তিনি সেসব তথ্য প্রকাশ করাকেই গুরুত্ব দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন৷দীপু রহমান মনে করেন বাংলাদেশে এখনও এ বিষয়ে আলোচনার সময় আসেনি৷ তাঁর মন্তব্য, ‘‘জাতি আরো শিক্ষিত হোক, তারপর হয়তো হবে৷''

শিহাব খান অবশ্য মনে করছেন মানুষ বেশি শিক্ষিত হলে নাকি নাস্তিক হওয়ার সম্ভাবনা বেশি৷

বদিউল আলম সমকামিতাকে মানসিক রোগ বলেই মনে করেন৷ বাংলাদেশে সমকামিতা বৈধ করা প্রসঙ্গে তিনি খানিকটা আতঙ্কিত৷ কারণ তাঁর ভয়, ‘‘৯০ ভাগ মুসলমানের এই দেশে যদি এই ধরনের বিকৃত আইন অনুমোদন করা হয় তাহলে দেশে সত্যিকারের জঙ্গি সৃষ্টি হলেও হতে পারে৷''

আল-আমিন হাসান তুষার বলছেন, ‘‘আমাদের সংস্কৃতি সমকামিতা সর্মথন করে না৷ এ প্রসঙ্গে বিতর্ক না বাড়ানোই ভাল৷''

আমির হামজা তো রীতিমতো ভয়ই পেয়েছেন সমকামিতা নিয়ে আলোচনায়৷ তাঁর মন্তব্য, ‘‘আস্তে আস্তে কিয়ামতও এগিয়ে আসছে৷''

দীপঙ্কর দাস মানুষের ব্যক্তি স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করতে নারাজ৷ তাঁর ভাষায়, ‘‘কেউ যদি ওতেই খুশি থাকে তো থাক না, কার কি যায় আসে?''

সংকলন: নুরুননাহার সাত্তার

সম্পাদনা: জাহিদুল হক