ভারতে ভুয়া বার্তা ‘বন্ধ করবে' হোয়াটসঅ্যাপ

হোয়াটসঅ্যাপ ভারতে ভুয়া বার্তা ছড়ানো বন্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে৷ ভারতের তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী রবি শঙ্কর প্রসাদ এ কথা জানিয়েছেন৷

হোয়াটসঅ্যাপসহ সামাজিক যোগাযোগের অন্যান্য মাধ্যমে ভুয়া বার্তা ছড়িয়ে জনঅসন্তোষ তৈরি বন্ধে চেষ্টা করছে ভারত৷

মঙ্গলবার নয়া দিল্লিতে ফেসবুকের মালিকানাধীন হোয়াটসঅ্যাপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ক্রিস ড্যানিয়েলসের সঙ্গে বৈঠক হয় রবি শঙ্কর প্রসাদের৷ ওই বৈঠকে ভুয়া বার্তা ছড়ানো বন্ধে হোয়াটসঅ্যাপের নতুন ‘টুল' ডেভেলপের প্রতিশ্রুতি এসেছে বলে মন্ত্রী জানিয়েছেন৷

এ বছর সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ভুয়া বক্তব্য ও বার্তা থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে দলবেঁধে হামলার ঘটনা ঘটে৷ বৈঠকে এ ধরনের অশুভ বার্তা-এর উৎস বের করার উপায় খুঁজতে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করেন মন্ত্রী রবি শঙ্কর৷

মার্কিন টেক জায়ান্ট ভারতের এই সমস্যা মোকাবেলায় একজন কর্মকর্তাকে নিয়োজিত করতে সম্মত হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘‘এ ধরনের মেসেজ চিহ্নিত করতে রকেট সায়েন্সের দরকার হয় না৷''

বিজ্ঞান পরিবেশ | 21.02.2014

হোয়াটসঅ্যাপের অন্যতম বৃহৎ বাজার ভারত, দুই কোটির বেশি গ্রাহক রয়েছে তাদের৷ অন্য যে কোনো দেশের তুলনায় ভারতে ব্যবহারকারীরা বেশি মেসেজ, ছবি ও ভিডিও ফরোয়ার্ড করেন বলে প্রতিষ্ঠানটির ভাষ্য৷

ভুয়া খবর বন্ধে সচেতনতা তৈরিতে দিল্লির একটি পত্রিকার শেষ পৃষ্ঠাজুড়ে হোয়াটসঅ্যাপের বিজ্ঞান

২০১৯ সালে ভারতে জাতীয় নির্বাচন সামনে রেখে স্বার্থান্বেষী মহল সোশ্যাল মিডিয়ায় ভুয়া বার্তা ছড়িয়ে মানুষের মধ্যে বিভ্রান্তি তৈরি করতে পারে বলে শঙ্কা রয়েছে৷

গত জুলাইয়ে হোয়াটসঅ্যাপের পক্ষ থেকে বলা হয়, মেসেজ ফরোয়ার্ডিং একসঙ্গে পাঁচ ব্যক্তি বা গ্রুপের মধ্যে সীমাবদ্ধ রাখা হবে৷

এছাড়া মিডিয়া মেসেজের সামনে থাকা কুইক ফরোয়ার্ডিং সরিয়ে দেওয়ারও কথা বলে তারা৷

আইটিমন্ত্রী প্রসাদ বলেন, এই সমস্যা কাটিয়ে উঠতে কাজ করছে হোয়াটসঅ্যাপ এবং ভুয়া মেসেজ নিয়ে সচেতনতা তৈরিতে বড় ধরনের ক্যাম্পেইনের পরিকল্পনা করছে তারা৷

এএইচ/এসিবি   (রয়টার্স)

আমাদের অনুসরণ করুন