শরণার্থী সংকট সমাধানে ইটালির পাশে দাঁড়াবে জার্মানি

বিপুল সংখ্যক শরণার্থী ইউরোপীয় ইউনিয়নের দেশগুলোতে প্রবেশ করছে৷ শরণার্থীর ঢল সামলাতে ইটালির সাথে একযোগে কাজ করার পরিকল্পনা করছেন জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল৷   

 ইইউ বাইরে থেকে বিপুল সংখ্যক শরণার্থী ইটালিতে অনুপ্রবেশের বিষয়টি সীমিত রাখতে দেশটিকে সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে জার্মানি৷

সোমবার জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা ম্যার্কেল ইটালির প্রধানমন্ত্রী জুসেপে কন্টের সঙ্গে এক বৈঠকে এই প্রতিশ্রুতি দেন৷    

বার্লিনে অনুষ্ঠিত বৈঠকে ম্যার্কেল বলেন, ‘‘আমরা ইটালির পারষ্পরিক সংহতির মনোভাবকে সহযোগিতা করতে চাই এবং জার্মানি শরণার্থী সংকটের ক্ষেত্রে ইউরোপের সংহতির ব্যাপারটি বোঝে৷''      

বৈঠকে ম্যার্কেল এবং কন্টে দু'জনই ইইউ-এর সীমানারেখার পুলিশ বিভাগ ‘ফ্রন্টেক্স' আরও শক্তিশালী করার ব্যাপারে একমত হন৷

এছাড়া আন্তর্জাতিক সংগঠনগুলো একযোগে আফ্রিকা ও মধ্যপ্রাচ্য থেকে ইউরোপে অভিবাসনের কারণ চিহ্নিত করে সেটি প্রতিরোধেরও চেষ্টা চালানো হবে বলে উল্লেখ করেন ম্যার্কেল৷

তিনি বলেন, ‘‘অভিবাসনপ্রত্যাশীদের ইইউ-এর পুরো অঞ্চলে প্রবেশাধিকারের অনুমোদন পাওয়ার আগে আশ্রয় প্রার্থনার আবেদন নিজ দেশ কিংবা ট্রানজিট দেশ থেকে প্রক্রিয়াকরণ করা উচিত৷'' 

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

দীর্ঘ পথ

তুরস্কের এডির্নে শহরের কাছে সিরীয় উদ্বাস্তুরা ছোটদের কোলে করে পায়ে হেঁটে চলেছেন গ্রিক সীমান্তের দিকে৷

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

সব বাধা পার হয়ে

গ্রিস আর ম্যাসিডোনিয়ার সীমান্তে গেভগেলিয়া শহরে তারের বেড়ার ধারে এক অভিবাসী শিশু৷ শুধুমাত্র ১৪ই সেপ্টেম্বরের রাত্রেই সাড়ে সাত হাজারের বেশি উদ্বাস্তু ম্যাসিডোনিয়ায় ঢোকেন৷

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

প্রবেশ নিষেধ

১৫ই সেপ্টেম্বর থেকে সার্বিয়ার সঙ্গে হাঙ্গেরির সীমান্ত চার মিটার উঁচু কাঁটাতারের বেড়া দিয়ে ঢাকা৷ শত শত উদ্বাস্তু সীমান্ত কেন্দ্রে নাম লেখাতে পারেন বটে, আবার ক্ষেত্রবিশেষে বহিষ্কৃতও হতে পারেন৷ বেআইনিভাবে সীমান্ত পার হওয়ার সাজা তিন বছর অবধি কারাদণ্ড, কাঁটাতারের বেড়ার ক্ষতি করলে পাঁচ বছর৷

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

সীমান্তে নিয়ন্ত্রণ জোরদার হচ্ছে

অস্ট্রিয়া আর হাঙ্গেরির মধ্যে সীমান্তে অস্ট্রিয়ান তরফে হাইলিগেনক্রয়েৎস শহর৷ মঙ্গলবার রাত্রি থেকেই বাছাইভাবে সীমান্তে নিয়ন্ত্রণ চালু করার কথা ঘোষণা করে ভিয়েনা সরকার৷ স্লোভেনিয়া, ইটালি এবং স্লোভাকিয়ার সঙ্গে সীমান্তেও নাকি অনুরূপ নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা করা হতে পারে, বলে জানিয়েছে অস্ট্রিয়ার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়৷

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

রেলস্টেশনে ভিড়

অস্ট্রিয়ার সালৎসবুর্গ শহরের মুখ্য রেলওয়ে স্টেশনে উদ্বাস্তুরা অপেক্ষা করছেন জার্মানিগামী ট্রেনের৷ রবিবার জার্মানি সাময়িকভাবে অস্ট্রিয়ার সঙ্গে ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেয় মিউনিখ রেলওয়ে স্টেশন – এবং শহরের উপর উদ্বাস্তু সমাগমের চাপ কমানোর আশায়৷ অবশ্য সোমবার সকালেই তা আবার তুলে নেওয়া হয়৷

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

মিউনিখে আরেক যাত্রার শুরু

মিউনিখ শহরের প্রধান রেলওয়ে স্টেশনে পথের খোঁজ দিচ্ছেন পুলিশ কর্মকর্তা৷ ট্রেনের জানলার কাচে যে শিশুমুখ, সে-ই তো ভবিষ্যৎ...

ইউরোপ অভিমুখে শরণার্থীর স্রোত নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা

বলকান রুট

উদ্বাস্তুর স্রোত এবার ক্রোয়েশিয়া হয়ে উত্তরে যাবার চেষ্টা করবে৷ তাদের গন্তব্য: জার্মানি, নেদারল্যান্ডস কিংবা সুইডেনের মতো কোনো সমৃদ্ধ, স্বাগতিক দেশ৷

গত কয়েক বছরে ইইউতে আশ্রয় নিতে লাখ লাখ শরণার্থী ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়েছে৷শরণার্থীদের ভিড়ে ইটালিতে অভিবাসনবিরোধী মনোভাব তৈরি হয়েছে, কেননা, ভূমধ্যসাগর হয়ে আসা ওই অভিবাসনপ্রত্যাশীদের বেশিরভাগই ইটালিতে নেমে ইইউতে প্রবেশের চেষ্টা করে৷ আর এদের অনেকের শেষ পর্যন্ত গন্তব্য হয় জার্মানি৷   

চলতি জুনেই প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পাওয়ার পর কন্টে প্রথমবারের মতো জার্মানি সফর করছেন৷ ইটালি ইইউ-এর অভিবাসন আইন পরিবর্তন করতে চায়৷ কারণ, দেশটি চাচ্ছে ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাকি দেশগুলো যেন শরণার্থীদের চাপ সমানভাবে বন্টন করে নেয়৷ বর্তমান অভিবাসন আইনে বলা হয়েছে, ইইউ- এর ক্ষেত্রে প্রথম যে দেশে তারা পৌঁছাবেন, সেদেশেই তারা অভিবাসনের জন্য আবেদন জমা দেবেন৷

কন্টে বলেন,‘‘ইটালির সীমান্তই ইউরোপের সীমান্ত৷''

অভিবাসন নিয়ন্ত্রণ করতে না পারায় ম্যার্কেলের দলসিডিইউ গত সাধারণ নির্বাচনে অত্যন্ত খারাপ ফল করেছিল৷ অক্টোবর মাসে বাভেরিয়ায় রাজ্য নির্বাচন৷ অভিবাসন নীতির প্রশ্নে অত্যন্ত কড়া অবস্থান নিয়ে ভোটারদের মন জয় করে হারানো সমর্থন ফিরে পেতে মরিয়া সিএসইউ, যার নেতৃত্ব দিচ্ছেন জার্মান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হর্স্ট সেহোফার৷

ম্যার্কেলের জোটের শরিক দলের নেতা সেহোফার নিজ উদ্যোগেই অভিবাসন নীতির এক খসড়া প্রস্তুত করেছেন,  যাতে বলা হয়েছে কোনো শরণার্থী অন্য দেশে নিজেকে নথিভুক্ত করে জার্মানিতে প্রবেশের চেষ্টা করলে তাঁকে সীমান্ত থেকেই বহিষ্কার করা হবে৷

ম্যার্কেল এই নীতির ঘোরতর বিরোধী৷ তিনি ইউরোপীয় স্তরে সমাধান খুঁজতে কিছুদিন সময় চেয়েছেন৷ বেআইনি অনুপ্রবেশ বন্ধ করার প্রয়োজনীয়তা স্বীকার করে তিনি ইউরোপের মধ্যে পারস্পরিক সমন্বয় গড়ে তুলতে বদ্ধপরিকর৷

এই নিয়ে দ্বন্দ্বে এ মাসে ম্যার্কেলকে সরকারের নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর মতো হুমকির মুখোমুখি হতে হয়েছে৷ শেষ র্পযন্ত অবশ্য ম্যার্কেল ও সোহোফার একটি মীমাংসায় এসেছেন৷

এইচআই/এসিবি (রয়টার্স, ডিপিএ, এপি, এএফপি)

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

জার্মানির ওপর বহুমুখী চাপ

শরণার্থীদের নিয়ে জার্মানিতে উদ্বেগ বাড়ছে৷ বেশ কিছুদিন ধরেই আঙ্গেলা ম্যার্কেল বলছেন, শরণার্থী সংকট ইউরোপের সবচেয়ে বড় সংকট হতে চলেছে৷ আশঙ্কা সত্যি হওয়ার কিছু লক্ষণ দেখা যাচ্ছে৷ এ বছর আট লাখেরও বেশি শরণার্থী জার্মানিতে আসবে বলে জার্মান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর আশঙ্কা৷ শরণার্থীবিরোধী বিক্ষোভ দানা বাঁধছে৷ তার ওপর নতুন দুশ্চিন্তা হয়ে উঠেছে হাঙ্গেরি থেকে অভিবাসনপ্রত্যাশীদের জার্মানির দিকে ঠেলে দেয়ার হিড়িক৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

জার্মানি ও অস্ট্রিয়ায় ট্রেনবোঝাই শরণার্থী

সোমবার শরণার্থীতে ভরা ট্রেন ঢুকেছে জার্মানির হামবুর্গ ও অস্ট্রিয়ার ভিয়েনা শহরে৷ ট্রেনগুলো এসেছে হাঙ্গেরি থেকে৷ যাত্রীদের বেশিরভাগই সিরিয়ার নাগরিক৷ তবে তাদের কাছে কোনো পাসপোর্ট, ভিসা বা বৈধ কাগজপত্র নেই৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

শরণার্থীদের চাপে বুদাপেস্ট রেল স্টেশন বন্ধ

হাঙ্গেরির রাজধানী বুদাপেস্টের কেন্দ্রীয় রেল স্টেশন সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে৷ মঙ্গলবার কয়েক হাজার অভিবাসনপ্রত্যাশী ভিয়েনা এবং মিউনিখ যাওয়ার জন্য স্টেশনে হাজির হওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নেয় রেল কর্তৃপক্ষ৷ ভিয়েনার পুলিশ জানায়, বুদাপেস্টের কেলেটি স্টেশনে ৩ হাজার ৬৫০ অভিবাসনপ্রত্যাশী প্লাটফর্মে অপেক্ষারত ভিয়েনা-মিউনিখগামী ট্রেনের দিকে এগোনোর চেষ্টা করে৷ পরে সবাইকে স্টেশন থেকে বের করে দেয়া হয়৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

হাঙ্গেরিকে আর্থিক সহায়তার আশ্বাস

এই মুহূর্তে হাঙ্গেরি খবরে এলেও, অভিবাসনপ্রত্যাশীরা এতদিন মূলত গ্রিস এবং ইটালি হয়েই ইউরোপের সমৃদ্ধ দেশগুলোতে প্রবেশের চেষ্টা করতো৷ এ বছর অন্তত ৩ লাখ অভিবাসনপ্রত্যাশী ঢুকেছে ইটালি ও গ্রিসে৷ এ কারণে দুটি দেশই ইইউর আর্থিক সহায়তা পেয়ে আসছে৷ ইইউর অভিবাসন বিষয়ক দূত জানিয়েছেন, হাঙ্গেরিকেও এ সহায়তা দেয়া হবে৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

শরণার্থীদের বিক্ষোভ

গত সপ্তাহেই ৭১ জন শরণার্থীর গলিত লাশ পাওয়া গিয়েছিল হাঙ্গেরি সীমান্তবর্তী ভিয়েনার এক রাস্তায়৷ মর্মন্তুদ সেই ঘটনার পর শরণার্থীদের মাঝে ক্ষোভ দেখা দেয়৷ সোমবার ২০ হাজার অভিবাসনপ্রত্যাশীর বিক্ষোভ মিছিল হয়েছে ভিয়েনায়৷ বিক্ষুব্ধ শরণার্থীদের দাবি, ইউরোপে প্রবেশের বৈধ রুট খুলে দিতে হবে, কেননা, ‘মানবতাই সবচেয়ে বড়’৷ ওপরের ছবিতে ভিয়েনা রেল স্টেশনে আসা অভিবাসনপ্রত্যাশীদের দেখা যাচ্ছে৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

শরণার্থী নিতে রাজি তবে মধ্যপ্রাচ্য বা আফ্রিকায় আপত্তি পোল্যান্ডের

মধ্যপ্রাচ্যের কোনো শরণার্থী নিতে রাজি নয় পোলিশ সরকার৷ সরকারের যুক্তি- ইউক্রেন সংকটের কারণে সেখান থেকে যাঁরা আসছে তাদের গ্রহণ করছে পোল্যান্ড, তাই আর শরণার্থী নেয়া সম্ভব নয়৷ পোল্যান্ড এতদিন সব মিলিয়ে মাত্র ২ হাজার ২০০ শরণার্থী নিতে রাজি ছিল৷ তবে ইইউ অঞ্চলে শরণার্থী সংকট বেড়ে যাওয়ায় পোল্যান্ড আরো বেশি শরণার্থী গ্রহণ করার চিন্তা করছে৷ ছবিতে পোল্যান্ডে আশ্রয় নেয়া এক চেচেন পরিবার৷

শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ইউরোপ

সাইকেল চালিয়ে....!

সিরিয়া থেকে অনেকে নাকি সাইকেলেই পাড়ি দিচ্ছেন দীর্ঘ পথ৷ রাশিয়ায় প্রবেশ করেছেন অনেকে৷ কেউ কেউ ঢুকে পড়েছেন নরওয়েতে৷ নরওয়ের কিরকেনস শহরের পুলিশ কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানান, এ পর্যন্ত দেড়শ-র মতো সিরীয় সে দেশে ঢুকেছে৷ ইউরোপের দেশ হলেও নরওয়ে বা রাশিয়া ইইউ-র সদস্য নয়৷ তবে নরওয়ে সেঙেন অঞ্চলের অন্তর্ভুক্ত৷ তাই সেখান থেকে ইইউভুক্ত যে কোনো দেশে অনায়াসে ঢুকে পড়া যায়৷